ইট-পাথরের এই কৃত্রিম শহরটায় মানুষগুলোও যেন কেমন কৃত্রিম হয়ে যাচ্ছে। কৃত্রিমতা চলে এসেছে সম্পর্কগুলোর মধ্যেও। আপনাদের সম্পর্কেও কি কৃত্রিমতা চলে এসেছে? হয়তো এসেছে নয়তো হওয়ার পথে। কিন্তু কেন? কারণ আপনি আপনার সম্পর্কের যত্ন নেননি। একটি গাছের যত্ন না নিলে যেমন গাছটি কেমন বিবর্ণ হয়ে যায় তেমনি একটি সম্পর্কেরও যদি যত্ন না নেন তাহলে সেই সম্পর্কটিও কৃত্রিম হয়ে যাবে। একটা সময় সেই সম্পর্কে থাকে না কোনো রসকষ। আর রসকষহীন একটা সম্পর্ক কখনো বেশিদিন স্থায়ী হতে পারে না। তাই প্রতিটি সম্পর্কেরই যত্ন নেওয়া উচিত৷ আজকের আলোচনা থেকে জেনে নিন, কীভাবে আপনার সম্পর্কের যত্ন নিবেন-

১) সবসময় খোঁজ-খবর রাখুন

প্রতিটি সম্পর্কের মূল স্তম্ভই হলো যোগাযোগ। যে সম্পর্কে নিয়মিত যোগাযোগ থাকে না সে সম্পর্কটি ধীরে ধীরে আর ভালো সম্পর্কে থাকে না। তাই যেখানেই থাকুন, সম্পর্ক ভালো রাখতে অবশ্যই নিয়মিত খোঁজ-খবর রাখুন। দুজনার মধ্যে দূরত্বটা অনেক বেশি? সচারাচর দেখা হয় না? তাতে কী? সোশ্যাল মিডিয়ার এই যুগে মুহূর্তেই পৃথিবীর এক প্রান্ত হতে অন্য প্রান্তের যে কারো সাথে যোগাযোগ করা যায়। তাই দূরত্ব যতই হোক, যোগাযোগ রাখুন, খোঁজখবর নিন সবসময়।

২) সম্পর্কে শ্রদ্ধাবোধ অটুট রাখুন

এjটি সম্পর্কের আরেকটি গুরুত্বপূর্ণ স্তম্ভ হলো শ্রদ্ধাবোধ। দুজন দুজনার প্রতি যদি কোনো শ্রদ্ধাবোধ না থাকে তাহলে সে সম্পর্ক কখনো ভালো থাকতে পারে না। অতএব তাকে শ্রদ্ধা করুন, সম্পর্ককে শ্রদ্ধা করুন। এমন কিছু করবেন না, যা সম্পর্কের প্রতি অসম্মান করা হয়।

আদর্শ জীবনসঙ্গী খুঁজতে

৩) মিথ্যা নয়

একদিন, দুইদিন, তিনদিন! তারপর? সত্যি বলতে মিথ্যা দিয়ে কখনো কোনো সম্পর্ক ভালো থাকতে পারে না। মিথ্যার পরাজয় সবসময়। আজ মিথ্যা বলে হয়তো সম্পর্কটাকে আপনি একটু জমিয়ে তুলছেন কিন্তু এই মিথ্যাই একদিন সম্পর্কটাকে একেবারে তলানিতে নিয়ে যাবে। তাই কোনো বিষয়ে মিথ্যার প্রশ্রয় না নিয়ে, কোনো ভুল হলে সেটা সুন্দর ভাবে বুঝিয়ে বলুন। ক্ষমা চান। পরবর্তিকে সেই ভুল না করার প্রতিশ্রুতি করেন৷ দেখবেন সেও বুঝবে। সম্পর্কও ভালো থাকবে।

৪) ভালোবাসুন মন খুলে

ভালোবাসায় কোনো কৃপণতা নয়। প্রতিটি সম্পর্কই টিকিয়ে রাখে দুজন দুজনার প্রতি অফুরন্ত ভালোবাসা। আর হ্যাঁ, ভালোবাসায় যেন কখনই কৃত্রিমতা না আসে। ভালোবাসুন মন খুলে। ভালোবাসাটা প্রকাশ করুন। সেটা যেভাবেই হোক। আপনি তাকে কতোটা ভালোবাসেন, এটা সে বুঝে নিবে! এই ধারনা থেকে বেরিয়ে আসুন। সে নিজে থেকে বুঝে নিবে, এই অপেক্ষায় না থেকে নিজের সবটুকু ভালোবাসা প্রকাশ করুন। প্রতিটি মানুষই তার প্রতি অন্যের ভালোবাসাটা দৃশ্যমান দেখতেই বেশি পছন্দ করে।

৫) মাঝেমধ্যে উপহার দিন

উপহার বলুন আর সারপ্রাইজ’ই বলুন। সম্পর্কের যত্ন নিতে এটা খুব গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে। কারণ প্রতিটি উপহার বা সারপ্রাইজ একেকটি মধুর গল্প হয়েই স্মৃতির পাতায় জায়গা করে নেয়। তাই মাঝেমধ্যে প্রিয় মানুষটিকে তার প্রিয় কিছু উপহার দিতে ভুলবেন না।

৬) তার প্রতি কৃতজ্ঞ হোন

স্বাভাবিক ভাবেই প্রতিটি সম্পর্কই আপনার জীবনে কোনো না কোনো ভাবে ইতিবাচক প্রভাব ফেলে। সেই দৃষ্টিকোণ থেকে প্রতিটি সম্পর্কের প্রতিই কৃতজ্ঞ থাকা উচিত। কৃতজ্ঞ শুধু মনে মনেই না, আপনাকে ঘিরে তার যদি ছোটো কোনো উদ্যোগও থাকে, তাতেও সরাসরি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করুন। সে অনেক খুশি হবে।

বিয়ে সংক্রান্ত যেকোনো তথ্য, সেবা, এবং পরামর্শ পেতে যোগাযোগ করুন তাসলিমা ম্যারেজ মিডিয়ার সাথে।
কল করুনঃ+880-1972-006691 অথবা +88-01782-006615 এ।
আমাদের মেইল করুন taslima55bd@gmail.com

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here